নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি, বন্দর প্রতিনিধি: অবৈধ দখলে চলে গেছে বন্দর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার ও আশপাশের সম্পত্তি। শহীদ মিনারের পেছনেই বিশালাকার বাঁশের স্তুপ রেখে মোটা অংকের ভাড়া আদায় করছে একটি চক্র। পাশাপাশি ময়লা আবর্জনা ও নেশাখোরদের আড্ডাস্থলে পরিণত হয়েছে শহীদ মিনার এলাকা।
এব্যাপারে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ চেয়েছে মুক্তিযোদ্ধাগন, শহীদ পরিবার ও এলাকাবাসী।

জানা গেছে, বন্দর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে জায়গা রাতারাতি অবৈধ দখলে চলে যাচ্ছে। একটি চক্র সুকৌশলে শহীদ মিনারের জায়গায় ডেকোরেটরের বিপুল পরিমান বাঁশ রেখে মাসে মাসে ভাড়া গুনছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, মূল বেদীর পেছনেই বিশাল বাঁশের স্তুপ। এছাড়া চারিদিকে ময়লা আবর্জনার স্তুপ। স্থানীয়রা জানায়, প্রতিদিন রাতে নেশাখোরদের আড্ডাস্থলে পরিণত হয় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকা। শহীদ মিনার অবমাননা হচ্ছে অহরহ। শহীদ মিনারের জায়গা দখল করে ভাড়া দিলেও এব্যাপারে কোন নেই স্থানীয় প্রশাসনের। নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন বছরে একবার ২১ শে ফেব্রুয়ারী এলে পরিস্কার করে একুশের কর্মসূচী পালন করে। এরপর আর খোঁজ নেয়না কেউ। শহীদ মিনার অবৈধ দখলমুক্ত করতে অতি সত্তর বাশের স্তুপ উচ্ছেদের দাবি জানিয়েছে এলাকাবাসী। এব্যাপারে বন্দর থানার অফিসার ইনচার্জ আবুল কালামের হস্তক্ষেপ চেয়েছে তারা।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here