নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ডা: সেলিনা হায়াত আইভীকে বহনকারী গাড়ীর চাকার নাট খুলে যাওয়ার ঘটনায় গঠিত নাসিকের তদন্ত কমিটি দু’সপ্তাহেও তাদের প্রতিবেদন জমা দিতে পারেনি।
তদন্তে এখনো অবদি তেমন তথ্য রহস্য উদঘাটন করতে না পারায় তদন্ত কাজ অব্যাহত রয়েছে তদন্ত কমিটি সূত্রে জানাযায়।

এদিকে, মেয়রের গাড়ীর চাকার নাট খুলে যাওয়ার ঘটনায় নাসিকের তদন্ত কমিটি এখনো প্রতিবেদন জমা দিতে না পারায় আইভীর পক্ষ থেকে কোন আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা সম্ভব হচ্ছে না। কারন, দূর্ঘটনার কবলে পড়লেও মেয়র আইভী তাৎক্ষনিক আইনানুগ কোন ব্যবস্থা না নিয়ে আগে অভ্যন্তরীণ তদন্তের নির্দেশ দেন। ফলে সেই তদন্ত রিপোর্ট পাওয়ার পরেই মেয়র পরবর্তী পদক্ষেপ নিবেন বলে বিশ^স্ত সূত্র জানায়।

কিন্তু তদন্তের দায়িত্ব পাওয়ার পর সপ্তাহখানেকের মধ্যেই তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয়ার প্রত্যাশা ব্যক্ত করলেও দু’সপ্তাহেও কেন তদন্ত কাজ সম্পন্ন হয়নি- এব্যাপারে জানতে চাইলে তদন্ত কমিটির প্রধান নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের নির্বাহী প্রকৌশলী আলী আজগর নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডিকে জানান, ‘তদন্তে এখনো কিছু পাওয়া যায়নি। তদন্ত কাজ চলছে। আর আমি মিডিয়াকে জানাতে এতটা ইন্টারেষ্টেড নই।’

উল্লেখ্য, গত ২ ডিসেম্বর ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আনিসুল হকের জানাযার াগে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে নারায়ণগঞ্জ থেকে নিজের সরকারী জিপে ঢাকা যাচ্ছিলেন নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ডা: সেলিনা হায়াত আইভী। পথে বনানী সিগন্যাল এলাকায় বিকট শব্দ শুনতে পেয়ে চালক সড়কের পাশে জিপটি থামান। তারপর তিনি গাড়ি থামিয়ে চেক করে দেখতে পান বাম পাশের চাকার ছয়টি নাটের মধ্যে তিনটি নাই। আর যে তিনটি নাট আছে সেটিও খুলে গিয়েছিল।

এরপর এই ঘটনায় বেশ আলোড়ন সৃষ্টি হয়। এটি নিছক দূর্ঘটনা না হত্যার চেষ্টা সেটা খতিয়ে দেখতে মেয়রের নির্দেশে নাসিকের নির্বাহী প্রকৌশলী আলী আজগরকে প্রধান করে চার সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়।

কমিটির অন্যান্য সদস্যরা হলেন, সিটি কর্পোরেশনের সহকারী সচিব আবুল বাশার, মেয়রের ব্যাক্তিগত সহকারী আবুল হোসেন ও সিটি কর্পোরেশনের উপ-সহকারী প্রকৌশলী ভারপ্রাপ্ত (যান্ত্রিক) রাশেদ মোল্লা।

গত ১০ ডিসেম্বর থেকে অনুষ্ঠানিক ভাবে তদন্ত কাজ শুরু করেন নাসিকের তদন্ত কমিটি।

আর মেয়র আইভী এই দূর্ঘটনায় বিচলিত হয়ে বলেছিলেন,‘ ড্রাইভার বিল্লাল হোসেন গাড়ীটি চালালেও তার উপর আমার আস্থা আছে। কিন্তু একসঙ্গে একটি চাকার ছয়টি নাট খুলে যাওয়া অস্বাভাবিক। বিষয়টি শঙ্কার।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here