নিউজ প্রাচ্যের ড্যান্ডি: আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষ্যে প্রার্থীরা এখন প্রচারনায় ব্যাস্ত সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নের দিক তুলে ধরছেন। সারা বাংলাদেশের মত নারায়ণগঞ্জে। এক্ষেত্রে নারায়ণগঞ্জে এগিয়ে রয়েছে ঐতিহ্যবাহী ওসমান পরিবারের সুযোগ্য সন্তান নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী আলহাজ¦ এ কে এম শামীম ওসমান।
যিনি আসন্ন নির্বাচনকে ঘিরে তার নির্বাচনী এলাকায় মানুষের কাছে যাচ্ছেন এবং সমস্যা ও উন্নয়নের কথাটা তুলে ধরছেন।

শামীম ওসমান যেখানেই যাচ্ছেন সেখানেই তার কর্ম ও জনসাধারনের প্রচুর ভিড় ও লোক সমাগম হচ্ছে। আর এ সুযোগটাই কাজে লাগাচ্ছেন হাইব্রিড, কাউয়া, প্রকৃতির আওয়ামীলীগের নামধারী কর্মীরা। তাই এই হাইব্রিড, কাউয়াদের জন্য প্রকৃত ত্যাগী আওয়ামীলীগের নেতা কর্মরা শামীম ওসমানের কাছে ভিড়তে পাড়ছে না।

তেমটাই দেখা গেছে সদ্য অনুষ্ঠিত বক্তাবলীতে উঠান বৈঠকের সময়। সেখানে ফতুল্লা থানা আওয়ামীলীগের কলঙ্ক সারাহ বেগম কবরী এমপি থাকাবস্থায় তার তিন নম্বর পিএস খ্যাত শিশিরের জন্য প্রকৃত আওয়ামীলীগের নেতারা শামীম ওসমানের সামনেই যেতে পারেন নাই। আর এ বিষয়টি নিয়ে ক্ষোভের সাথে ফুঁসে উঠছে প্রকৃত আওয়ামীলীগের ত্যাগী নেতাকর্মীরা।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে কয়েকজন আওয়ামীলীগ ও যুবলীগ নেতারা জানান কবরী এমপি থাকাবস্থায় শিশির এমন কোন অপকর্ম নেই যে, না করেছে। আমাদের বক্তাবলীর রাজনৈতিক অবিভাবক ফতুল্লা থানা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এম.শওকত আলীকে জেল খাটিয়ে পর্যন্ত ছেড়েছেন।

মসজিদের স্কুল, রাস্তা, কবরস্থানের টাকা পর্যন্ত খেয়েছেন কবরী। যা কিনা আমাদের স্ব-চোখে দেখা। আর এর নেপথ্যে মূল কারিগর ছিলেন শিশির যা, কিনা ঐ সময় আমাদের বিপদের সম্মূখীন দাঁড় করিয়ে দিয়েছিল দলটিকে। ফতুল্লা থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি সাইফুল্লাহ বাদল ও সাধারণ সম্পাদক শওকত আলী অনেক কষ্ট করে দলটিকে বাঁচিয়েছেন। কিন্তু আমরা কষ্ট পাই যখন জামাত শিবির এই দেশে আবার রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় আসার জন্য ওঠে পড়ে লেগেছে। ঠিক এই শিশির মার্কা মানুষ যখন অবার শামীম ওসমানের সামনে হাটে তখন অমাদের কষ্ট লাগে। এই লজ্জা অপমানের ঘৃণা রাখার জায়গা থাকে না। শিশির কখনো আওয়ামীলীগ করে না। এরা আসে হালুয়া রুটি খেতে খাওয়া শেষ হলে অবার চলে যায়। যেকোন সময় এধরনের হালুয়া রুটি খাওয়া মানুষকে গণধোলাই দিয়ে এলাকা থেকে বের করে দেওয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here