নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে দলকে তৃণমূল পর্যায়ে সংগঠিত করার লক্ষ্যে এবং নেতাকর্মীদের চাঙ্গা করতে বিএনপি’র কেন্দ্রীয় নেতাদের একটি টিম দেশব্যাপী প্রতিটি জেলা সফর করবেন।
সে লক্ষ্যে নারায়ণগঞ্জে সাংগঠনিক সফরে আসবেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিষ্টার মওদুদ আহম্মেদ, এ জন্য নারায়ণগঞ্জ জেলা ও মহানগর বিএনপি কর্মীসভার আয়োজন করেছে।

আর এই কর্মীসভাকে সফল করতে নারায়ণগঞ্জের মাঠ পর্যায়ে ব্যাপক সাড়া লক্ষ্য করা গেছে। এই কমসূচিকে কেন্দ্র করে ঝিমিয়ে পরা নারায়ণগঞ্জ বিএনপি’র নেতাকর্মীরা নতুন করে উজ্জীবিত হচ্ছে এবং সকল দ্বন্দ সংঘাত দুর করে আগামী নির্বাচনে শক্তিশালী অবস্থান তৈরী করতে সক্ষম হবে বলে মনে করছে রাজনীতি বিশ্লেষকরা।

নারায়ণগঞ্জে এর আগের কর্মীসভায় ঘটে যাওয়া বিশৃঙ্খলার আলোকে এবারের কর্মী সভা সফল করার ব্যাপারে আশাবাদী তৃণমূল নেতাকর্মীরা।

ঘটনাসূত্রে প্রকাশ, দীর্ঘ প্রায় এক যুগ ক্ষমতার বাইরে থাকার ফলে সারা দেশের মতো নারায়ণগঞ্জ বিএনপি’র নেতাকর্মীদের অবস্থাও নাজেহাল। সরকারী দলের মামলা হামলায় জর্জরিত হয়ে ঘর বাড়ি ছেড়ে যাযাবর জীবন যাপণ করছে। আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা মাঠ পর্যায়ের এসব তৃণমূল নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ করে দলকে সাংগঠনিকভাবে গতিশীল করার লক্ষ্যে দেশব্যাপী কর্মী সম্মেলনের মাধ্যমে কেন্দ্রীয় নেতাদের একটি টিম সারাদেশে ঘুরে বেড়াবে।

আর নারায়ণগঞ্জ জেলার দায়িত্বপ্রাপ্ত টিম লিডার হচ্ছেন বিএনপি’র স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিষ্টার মওদুদ আহমেদ। আগামী ১৩ জানুয়ারী নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপি ও ২০ জানুয়ারী নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপি’র কর্মী সম্মেলনে প্রধাণ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন ব্যারিষ্টার মওদুদ।

কেন্দ্রীয় কর্মসূচি ঘোষনার পর থেকে নারায়ণগঞ্জ জেলা ও মহানগর বিএনপি এবং অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীদের মাঝে নতুন প্রাণের সঞ্চার হয়। এতোদিন ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা নেতাকর্মীরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে কর্মসূচি সফল করার চেষ্টা করতে থাকেন। দলের সিনিয়র নেতাদের মাধ্যমে মাঠ পর্যায়ের তৃণমূল নেতাকর্মীরা তাদের সাংগঠনিক কর্মকান্ড অব্যহত রাখছেন।

যদিও চলতি বছরের ফেব্রুয়ারীতে কমিটি গঠনের পর মে মাসে কর্মীসভার আয়োজন করে নারায়ণগঞ্জ জেলা ও মহানগর বিএনপি। কিন্তু আয়োজনের দুর্বলতার কারনে দুটি সভাতেই চরম বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি হয়। দায়িত্ব পাওয়ার পর সর্বপ্রথম জেলা বিএনপি’র বড় আয়োজন কর্মীসভার স্থান নির্ধারণ করা হয়েছিলো নতুন কোর্ট এলাকায় অবস্থিত হিমালয় চাইনিজ রেষ্টুরেন্টে। এতো ছোট পরিসরে জেলা বিএনপি’র মতো একটি বৃহৎ সংগঠনের কর্মীসভার আয়োজনের কারনে নেতাকর্মীদের স্থান সংকৃলানের ব্যবস্থা করতে পারেনি আয়োজকরা। তাছাড়া জেলা বিএনপি’র সহ সভাপতি এড. আবুল কালাম আজাদ বিশ^াস সে অনুষ্ঠানে নেতাকর্মীদের দ্বারা লাঞ্ছিত হন। কেন্দ্রীয় নেতাদের সামনেই ঘটে এসকল অপ্রীতিকর ঘটনা।

একইভাবে শহরের হোসিয়ারী সমিতি কমিউনিটি সেন্টারে আয়োজিত নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপি’র কর্মীসভায়ও চরম বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি হয়। জেলা বিএনপি’র সাংগঠনিক সম্পাদক মাসুকূল ইসলাম রাজিব গ্রুপের সাথে মহানগর ছাত্রদলের যুগ্ম আহবায়ক আবুল কাউসার আশা গ্রুপের সংঘর্ষে কয়েকজন আহত হয়। এখানেও কেন্দ্রীয় নেতাদের সামনেই বিবাদে জড়িয়ে পরেন রাজিব ও আশার সমর্থকরা। তাই আসন্ন কর্মীসভা আয়োজন নিয়ে শংকায় রয়েছেন নারায়ণগঞ্জ বিএনপি’র মাঠ পর্যায়ের কর্মী সমর্থকরা।

তবে সকল শংকাকে উড়িয়ে দিয়ে আসন্ন কর্মীসভা সফলভাবে আয়োজনের প্রস্তুতির কথা জানিয়েছেন জেলা ও মহানগর বিএনপি’র নেতারা।

আসন্ন কর্মী সভার প্রস্তুতি সম্পর্কে নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক মামুন মাহমুদ নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডিকে বলেন, আগামী ১৩ জানুয়ারী আমাদের কর্মী সম্মেলন হবে। তবে কর্মী সম্মেলন কোথায় হবে তা এখনও নির্ধারণ হয়নি। আশা করছি খুব শীঘ্রই তা নির্ধারণ হয়ে যাবে। আর এ ধরনের একটি কর্মী সম্মেলন সফল করতে আমাদের এক দিনের প্রস্তুতিই যথেষ্ট। ইতিমধ্যে সে প্রস্তুতির কাজ চলছে।

এ বিষয়ে নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামাল নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডিকে বলেন, আগামী ২০ জানুয়ারী আমাদের কর্মী সভা অনুষ্ঠিত হবে। তবে কর্মী সম্মেলন কোথায় হবে তা এখনও নির্ধারণ হয়নি। আমরা শহরের পাশাপাশি বন্দরেও স্থান খুঁজছি, যেখানে পাবো, সেখানেই করবো। তবে কর্মী সভা সফল করতে আমাদের সকল প্রস্তুতি আমরা চালিয়ে যাচ্ছি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here