নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: অবশেষে পৌষের শুরুতেই শীত জেঁকে বসতে শুরু করেছে নারায়ণগঞ্জে। রাত থেকে দিনভর ঘন কুয়াশায় আচ্ছন্ন হয়ে পড়ছে গোচটা নারায়ণগঞ্জ। তন্মধ্যেই চলছে আবার সূর্যের লুকোচুরি খেলা। ভাগ্যক্রমে ক্ষনিকের জন্য পূব আকাশে সূর্যের দেখা মিললেও পলক মেলতেই আবারো হারিয়ে যাচ্ছে মেঘলা কুয়াশার আড়ালে।
মঙ্গলবার (১৯ ডিসেম্বর) দিবাগত রাত থেকেই নগরী জুড়ে ঘন কুয়াশার কারনে শীতের আমেজ বইতে শুরু করেছে নারায়ণগঞ্জে। সারাদিন চারদিক কুয়াশাচ্ছন্ন থাকলেও বিকেল ৪ টায় ক্ষনিকের জন্য আকাশে সূর্যের দেখা মিলে।

আর ঘন কুয়াশার কারনে নগরীর কর্মজীবি মানুষদের সকাল থেকেই শীতের আমেজে কর্মস্থলে যেতে হয়েছে। অন্ধকারাচ্ছন্ন পরিবেশের কারনে দিনের বেলায় বিভিন্ন যানবাহনের হেডলাইট জ¦ালিয়ে চলাচল করতেও দেখা যায়।

অপরদিকে, তীব্র এই শীত নিবারনের জন্য নগরীর ফুটপাত থেকে বিপনী বিতানে গরম গরম কাপড় কিনতে প্রচন্ড ভীড় পরিলক্ষিত হয়েছে। ছোট, বড়, বৃদ্ধ-বৃদ্ধা সকলকেই শীত নিবারনে গরম কাপড় পরে রাস্তায় চলাচল করতে দেখো গেছে।

তবে সকাল ৭/৮ টার দিকে নারায়ণগঞ্জ নগরী থেকে সুদুর ঢাকাগামী কর্মজীবি মানুষ তীব্র এই শীতের কারনে তাদের কর্মস্থলে যেতে অনেক বেগ পেতে হয়েছিল বেশী।

রাজধানী ঢাকার মতিঝিলে একটি বেসরকারী প্রতিষ্ঠানে চাকুরী করেন আরিফুল হক (৪৮)। শুক্রবার ব্যাতীত প্রতিদিন সকাল ৮টায় নারায়ণগঞ্জ কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল থেকে বাস যোগে তাকে তার অফিসে যেতে হয়। কথা হয় তার সাথে। তীব্র এই ঘন কুয়াশা আর শীত উপেক্ষা করে কর্মস্থলে যেতে কেমন লাগছে জানতে চাইলে নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডিকে তিনি জানান, এমনিতেই চলছে শীতকাল আর হঠাৎ করে এরকম তীব্র শীত আর ঘন কুয়াশার কারনে কর্মস্থলে যেতে আমাদের অনেক বেগ পেতে হচ্ছে।

এরকম আরো কয়েকদিন চলতে থাকলে আমাদের ভীষন কষ্ট করে যেতে হবে কর্মস্থলে।

এদিকে আবহাওয়া অফিসের কিছুদিন আগের পূর্বাভাসে বলা হয়েছিল চলতি বছর ডিসেম্বর মাসের মাঝামাঝি এবং আগামী বছরের জানুয়ারী মাসের প্রথম সপ্তাহ থেকে শৈত্য প্রবাহ, ঘন কুয়াশার কারনে তীব্র শীত থাকেতে পারে। এ সময় তাপমাত্রা নীচে নেমে আসতে পারে বলে আবহাওয়া অফিস জানিয়েছিল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here