নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: নারায়ণগঞ্জের নবাগত পুলিশ সুপার হারুন অর রশিদ বলেছেন, নারায়ণগঞ্জ সর্ম্পকে মানুষের একটি ভিন্ন ধারনা ছিলো। নারায়ণগঞ্জ মানেই বিশৃঙ্খলা, কিন্তু না। এখন নারায়ণগঞ্জের পরিস্থিতি অনেক শান্ত। নারায়ণগঞ্জের এই ভাবমূর্তি যেন নষ্ট না হয়। আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কেউ যেন অরাজকতা, নৈরাজ্য সৃষ্টি না করতে পারে সেটাকে আমরা চ্যালেঞ্জ হিসাবে নিয়েছি। আর এই চ্যালেঞ্জে সকলের সহযোগিতা কামনা করছি।

জেলা সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারণী ফোরাম আইানশৃঙ্খলা কমিটির বৈঠকে তিনি এসব কথা বলেন।

রবিবার (৯ ডিসেম্বর) সকালে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

পুলিশ সুপার আরও বলেন, শিল্প নগরীর শহর নারায়ণগঞ্জ। গার্মেন্টস ব্যবসা থেকে শুরু করে অনেক ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান রয়েছে এই নারায়ণগঞ্জে। কোন চাদাঁবাজ ব্যাক্তি বা গোষ্টীর কাছে যেনো ব্যবসায়ীরা জিম্মি হয়ে না যায় সেদিকেই লক্ষ্য রাখতে হবে। গামেন্টস শিল্প সহ নানা কল্যানেই নিজের পেশাকে কাজে লাগাবো। গার্মেন্টে কোন চাঁদাবাজি বরদাস্ত করবোনা।

নারায়ণগঞ্জের জেলা প্রশাসক রাব্বী মিয়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন সিভিল সার্জন ডা. এহসানুল হক, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) জসিম উদ্দিন হায়দার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) রেজাউল বারী, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট মো: সেলিম রেজা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মো: মনিরুল ইসলাম, এনডিসি জ্যোতি বিকাশ চন্দ্র, জেল সুপার সুভাষ কুমার ঘোষ, র‌্যাব-১১ এর সিনিয়র এএসপি জসিম উদ্দিন চৌধুরী, সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা হোসনে আরা বীনা, বন্দর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা পিন্টু বেপারী, রূপগঞ্জ উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা আবুল ফতেহ মোহাম্মদ শফিকুল ইসলাম, আড়াইহাজার উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা সুরাইয়া খান, সোনারগাঁ উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিনুর ইসলাম, সদর উপজেলার চেয়ারম্যান এড. আবুল কালাম আজাদ বিশ্বাস, বন্দর উপজেলার চেয়ারম্যান আতাউর রহমান মুকুল, জেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা কানিজা ইয়াসমিন, সরকারি তোলারাম কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর বেলা রানী সিংহ প্রমুখ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here