নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি, বন্দর প্রতিনিধি: বন্দরে গৃহবধূ আফসানা আক্তার সৃষ্টিকে নির্যাতনের ঘটনায় শ্বশুড় সাইদুর রহমান (৫৫)কে গ্রেপ্তার করেছে। মঙ্গলবার রাতে বন্দর থানার সোনাচরাবাগ এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ ব্যাপারে নির্যাতিত গৃহবধূ পিতা আবু সাঈদ মিয়া বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে এ মামলা দায়ের করেন। যার মামলা নং- ৪২(৩)১৮।

ধৃত শ্বশুড় সাইদুর রহমান বন্দর উপজেলার সোনাচরাবাগ এলাকার সিদ্দিকুর রহমানের ছেলে। জানা গেছে, গত ৬ বছর পূর্বে সোনাচরাবাগ এলাকার সাইদুর রহমানের ছেলে হাসান বিন সাঈদের সাথে একই এলাকার আবু সাঈদ মিয়ার মেয়ে আফসানা আক্তার সৃষ্টির সাথে ইসলামি শরিয়ত মোতাবেক বিয়ে হয়। বিয়ের সময় আবু সাঈদ মিয়া মেয়ের সুখের কথা চিন্তা করে তার যৌতুক শ্বশুড় সাইদুর ও শ্বশুড়ী ফরিদা বেগেমের হাতে নগদ টাকাসহ ৫ লাখ টাকা আসভাবপত্র যৌতুক হিসেবে দেয়। বিয়ের কয়েক বছর পর যৌতুক লোভী শ্বশুড়/শ্বাশুড়ী ও যৌতুক লোভী স্বামী হাসান বিন সাঈদ গৃহবধূর নিকট আবারও ২ লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে। দাবিকৃত যৌতুক দিতে না পারায় গত ৫ মার্চ উল্লেখিত যৌতুক লোভী পরিবার ক্ষিপ্ত হয়ে গৃহবধূকে বেদম পিটিয়ে বাড়ী থেকে বের করে দেয়।

এ ব্যাপারে গৃহবধূর পিতা আবু সাঈদ মিয়া স্থানীয় পঞ্চায়েতের কাছে বিচার চেয়ে না পেয়ে বন্দর থানায় মামলা দায়ের করলে ওই মামলা দায়েরের ওই রাতে যৌতুক লোভী শ্বশুড় সাইদুর রহমানকে গ্রেপ্তার করলে যৌতুক লোভী ছেলে ও তার মা পলাতক রয়েছে। ধৃতকে ওই মামলায় বুধবার দুপুরে আদালতে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here