নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: একে তো ক্ষমতাসীন দল, দ্বিতীয়ত লক্ষ্যমাত্রাও প্রায় লক্ষাধিক। তাই বেশ উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের উদ্যোগে ইউনিয়ন থেকে থানা পর্যায়ে দলীয় নতুন সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্যক্রম চলার প্রত্যাশা করলেও অনেকটা চুপিসারেই যেন চলছে নতুন সদস্য সংগ্রহ অভিযান বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন তৃণমূল নেতৃবৃন্দ।
তাদের মতে, দীর্ঘ বছর ক্ষমতার বাইরে থেকেও নারায়ণগঞ্জের বিভিন্ন ওয়ার্ড থেকে ইউনিয়ন পর্যন্ত গিয়ে শীর্ষস্থানীয় নেতৃবৃন্দরা বেশ ঘটা করেই তাদের দলীয় নতুন সদস্য সংগ্রহ কার্যক্রম পরিচালনা করলেও ক্ষমতাসীন দলের নতুন সদস্য সংগ্রহ অভিযান চলছে নীরবে নিভৃতে। যেখানে ক্ষমতাসীন দল হিসেবে আওয়ামীলীগের সদস্য সংগ্রহ উপলক্ষ্যে তৃণমূল পর্যায়ে সর্বাধিক অনুষ্ঠান হওয়ার কথা ছিল, সেখানে বিএনপি বিভিন্ন স্থানে জাঁকজমক ভাবে দলীয় সদস্য সংগ্রহ অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে। যা দেখে বিএনপিকে ক্ষমতাসীন দল আর আওয়ামীলীগকে বিরোধী দল হিসেবে মনে হচ্ছে।

তবে কি অভ্যন্তরীণ কোন্দলের কারনে জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য সংগ্রহ অভিযান চুপিসারে হচ্ছে, নাকি পূর্ণাঙ্গ কমিটির অভাবে তৃণমূল পর্যায়ে জাঁকজমক ভাবে সদস্য সংগ্রহ অভিযান বিলম্বিত হচ্ছে- এমনই প্রশ্নের উত্তর জানতে শুক্রবার (৬ অক্টোবর) বিকেল ৪ টা ৫১ মিনিট থেকে ৪ টা ৫৩ মিনিট পর্যন্ত পর্যায়ক্রমে জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাই ও সাধারন সম্পাদক এড. আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহিদ বাদলের মুঠোফোনে দুই দফায় যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তাদের কেউই মুঠোফোন রিসিভ করেন নি।

উল্লেখ্য, গত ৩০ জুলাই শহরের দলীয় কার্যালয়ে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে জেলা আওয়ামীলীগের উদ্যোগে দলীয় নতুন সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করে যান কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের ঢাকা বিভাগীয় যুগ্ম সম্পাদক ডা: দিপুমনি এমপি।

আর জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাইয়ের সভাপতিত্বে ও সাধারন সম্পাদক এড. আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহিদ বাদলের সঞ্চালনায় উক্ত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিভাগীয় সম্পাদক ব্যারিষ্টার মহিবুল আলম চৌধুরী নওফেল।

তারপর থেকে অদ্যবধি জেলার আওতাধীন ৪৫ টি ইউনিয়ন ও ৭ টি থানা এলাকার কোথাও আনুষ্ঠানিক ভাবে দলীয় নতুন সদস্য সংগ্রহ কার্যক্রমের আয়োজন পরিলক্ষিত হয়নি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here