নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রতীক বরাদ্দ পেয়ে শেষ মুহুর্ত পর্যন্ত লড়াই চালিয়ে বিজয় ছিনিয়ে আনার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থীরা। দীর্ঘ এক যুগের ক্ষমতা খরা কাটানোর লক্ষ্যে এবার নির্বাচনকে মুক্তির আন্দোলন ভেবে সকলের ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টায় বিজয় ছিনিয়ে আনা সম্ভব বলে আশাবাদী তারা। সেই সাথে নির্বাচনের সুষ্ঠ পরিবেশ তৈরীর জন্য নির্বাচন কমিশন এবং নিরাপত্তা বাহিনীর প্রতি আহবান জানিয়েছেন তারা।

এদিন প্রতীক বরাদ্দের পর নারায়ণগঞ্জের সবচেয়ে আলোচিত আসন ফতুল্লা সিদ্ধিরগঞ্জের প্রভাবশালী সাংসদ একেএম শামীম ওসমানের বিরুদ্ধে বিপুল ভোটে বিজয়ী হওয়ার আশাবাদ ব্যক্ত করেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থী মুফতি মনির হোসাইন কাশেমী। উপস্থিত সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, বাংলাদেশের মানুষ গত ১২ বছর কোন সুষ্ঠ নির্বাচন দেখেনি। মানুষ মুখিয়ে আছে একটি সুষ্ঠ নির্বাচনের জন্য। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও প্রশাসন আমাদের আশ্বস্ত করেছেন এবার দৃষ্টান্তমূলক একটি সুষ্ঠ নির্বাচন হবে। যদি ফেয়ার ইলেকশন হয় তাহলে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনে দুই-তৃতীয়াংশ ভোট পেয়ে জয় লাভ করবো ইনশায়াল্লাহ।

নারায়ণগঞ্জ-৩ (সোনাগাঁ) আসনে বিএনপি’র মনোনীত প্রার্থী আজহারুল ইসলাম মান্নান সুষ্ঠ নির্বাচনের পরিবেশ দাবী করে বলেন, বাংলাদেশে বর্তমানে মানুষের কোন মৌলিক অধিকার নেই। দেশের মানুষের অধিকার আদায়ের সংগ্রাম করায় বিএনপি’র চেয়ারপার্সণ ও গনতন্ত্রের মা বেগম খালেদা জিয়াকে কারাগারে আটকে রাখা হয়েছে। তাই আসন্ন নির্বাচনকে আমরা দেশের মানুষের অধিকার আদায়ের আন্দোলন হিসেবে নিয়েছি। সেই সাথে আমাদের দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে কারাগার থেকে মুক্ত করার সংগ্রাম হবে এই নির্বাচন। আমরা জাতীয়তাবাদী আদর্শের প্রতিটি সৈনিক লড়াই করে ধানের শীষের বিজয় ছিনিয়ে আনবো এবং দেশের মানুষের হারানো অধিকার ফিরিয়ে দেবো। আর এ লক্ষ্যে সকল ভেদাভেদ ভুলে সোনারগাঁয়ের প্রতিটি নেতাকর্মী আজ ঐক্যবদ্ধ। সকলে সম্মিলিত প্রচেষ্টায় ৩০ ডিসেম্বর ধানের শীষের ভোট বিপ্লব ঘটবে।

বিকেলে আজহারুল ইসলাম মান্নান সোনাগাঁয়ের কাঁচপুর মসজিদে মিলাদ ও দোয়ার মাধ্যমে তার নির্বাচনী গন সংযোগ শুরু করেন এবং ভোটারদের কাছে বেগম খালেদা জিয়ার সালাম পৌছে দেন।

এদিকে নারায়ণগঞ্জ-২ (আড়াইহাজার) আসনে বিএনপি’র প্রার্থী নজরুল ইসলাম আজাদ দল থেকে প্রাথমিকভাবে মনোনয়ন পাওয়া সাবেক এমপি আতাউর রহমান আঙ্গুর ও প্রয়াত নেতা বদরুজ্জামান খসরুপুত্র মাহমুদুর রহমান সুমনের বাসায় গিয়ে ধানের শীষের পক্ষে ঐক্যবদ্ধ প্রচারনা শুরু করেন এবং আগামী ৩০ তারিখ পর্যন্ত সকলকে সাথে নিয়ে ধানের শীষের বিজয় ছিনিয়ে আনা পর্যন্ত লড়াই করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

এছাড়া নারায়ণগঞ্জ-৫ (সদর-বন্দর) আসনে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থী এসএম আকরামের পক্ষে ঐক্যবদ্ধ হয়েছে এ অঞ্চলের বিএনপি। সকল বিএনপি নেতাকর্মীকে সাথে নিয়ে আগামী ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনের মাঠে নেমে পরেছেন আকরাম এবং বিজয় অর্জণ পর্যন্ত লড়াই চালিয়ে যাওয়ার অঙ্গিকার ব্যক্ত করেছেন। সেই সাথে নির্বাচনে সবার জন্য সমান সুযোগ নিশ্চিতের মাধ্যমে একটি সুষ্ঠ নির্বাচনের পরিবেশ সৃষ্টিতে নির্বাচন কমিশন এবং প্রশাসনের প্রতি আহবান জানিয়েছেন তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here