নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: বেতন পেয়েছেন তবে বোনাস বাকী, কিন্তু তাতে কি, ভীড় সামলাতে একটু আগেই পরিবার নিয়ে ঈদের কেনাকাটা করতে শপিং মল থেকে ফুটপাত পর্যন্ত ঘুরে বেরিয়েছেন চাকুরীজীবি সোহেল সরকার।
তিনি এই প্রতিবেদককে বলেন, যেহেতু ২০ রোজার পর মার্কেট গুলোতে ক্রেতাদের ভীড় বেড়ে যায় সেহেতু একটু আগেই সাধ্য অনুযায়ী পোশাক কেনাকাটা সেরে ফেললাম।

শুক্রবার (৯ জুন) সরেজমিন নগরীর বিভিন্ন শপিং মল, বিপনী বিতানসহ ফুটপাতে ঘুরে দেখা গেছে, সকালে একটু রোঁদের প্রখরতা থাকলেও দুপুর গড়াতেই নারী-পুরুষ দল বেঁধে ঈদের কেনাকাটায় বেরিয়ে পড়েছিলেন।

বিভিন্ন বিপনী বিতানের বিক্রেতারা জানান, এখন ঈদ যতই ঘনিয়ে আসবে ততই বিক্রি বাড়বে বলে তাদের প্রত্যাশা। আর সাপ্তাহিক ছুটির দিন হওয়ায় চাষাড়া এলাকায় ফুটপাতেও নিন্ম মধ্যবিত্ত আয়ের ক্রেতাদের বেশ ভাগ পরিলক্ষিত হয়। হাঁকডাক দিয়ে ক্রেতাদের কাছে পণ্য বিক্রি করতে পারায় খুশি হকাররা।

বিভিন্ন শাড়ির দোকানে দেখাগেছে, টাঙ্গাইল শাড়ি ৬০০ টাকা থেকে ১২০০ টাকা, জর্জেট শাড়ি ১২০০ টাকা থেকে তিন হাজার টাকা, সিল্ক শাড়ি দুই হাজার টাকা থেকে সাত হাজার টাকা পর্যন্ত বিক্রি হচ্ছে।

শহরের চাষাড়া বেইলী টাওয়ারে পাঞ্জাবীর দোকান গুলোতে সুতি পাঞ্জাবী তিনশ টাকা থেকে দুই হাজার টাকা, জর্জেট পাঞ্জাবী দেড় হাজার টাকা থেকে সাড়ে তিন হাজার টাকা, সিল্ক পাঞ্জাবী (ভারতীয়) দুই হাজার টাকা থেকে আড়াই হাজার টাকা, জামদানি পাঞ্জাবী ৭০০ টাকা থেকে ১৬০০ টাকা, টিস্যু পাঞ্জাবী সাড়ে তিন হাজার টাকা থেকে পাঁচ হাজার টাকা, মটকা পাঞ্জাবী ১২০০ টাকা থেকে আড়াই হাজার টাকা দাম রয়েছে।

এছাড়াও বিভিন্ন সাইজের শার্ট ৪০০ টাকা থেকে ১৮০০ টাকা, জিন্স প্যান্ট ছোটদের ৫০০ টাকা থেকে ৬০০ টাকা, বড়দের ৭০০ টাকা থেকে দেড় হাজার টাকা, গ্যাবাডিন প্যান্ট এক হাজার টাকা থেকে আড়াই হাজার টাকা পর্যন্ত দামে বিক্রি হচ্ছে।

তাছাড়া ফুটপাতেও ঈদ উপলক্ষে বিভিন্ন ধরনের শার্ট ও গেঞ্জী সাজিয়ে বসেছেন ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা। যা দেড়শ টাকা থেকে ৩০০ টাকা পর্যন্ত দামে বিক্রি করা হচ্ছে। এখানকার শার্টগুলোর রং ও ডিজাইন ভাল হওয়ার কারণে ক্রেতাদের আকর্ষণ করছে।

পাশাপাশি জুতার বাজারও চাঙ্গা রয়েছে। ছোটদের জুতা স্যান্ডেল ৪০০ টাকা থেকে ৯০০ টাকা, বড়দের স্যান্ডেল ৬০০ থেকে আড়াই হাজার টাকা, জুতা ৭০০ টাকা থেকে সাত হাজার টাকা পর্যন্ত দামে বিক্রি হচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here