নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: নজিরবিহীন নিরাপত্তায় নারায়ণগঞ্জে বর্নাঢ্য আয়োজনে উদযাপিত হয়েছে সনাতন ধর্মালম্বীদের অন্যতম ধর্মীয় অনুষ্ঠান শ্রীশ্রী জগন্নাথ দেবের রথযাত্রা উৎসব।
রবিবার (২৫ জুন) বিকেলে শ্রীশ্রী জগন্নাথ দেবের রথযাত্রা উপলক্ষে বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ মহানগর কমিটির উদ্যোগে শহরের নিতাইগঞ্জস্থ শ্রীশ্রী বলদেব জিউর আখড়া প্রাঙ্গনে ধর্মীয় আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।


মহানগর পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারন সম্পাদক শিপন সরকার শিখনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি শংকর সাহা, সাধারন সম্পাদক সুজন সাহা, শ্রীশ্রী গোপাল জিউর আখড়ার সভাপতি পরিতোষ কান্তি সাহা, নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন ১৮ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো: কবির হোসাইন, ১৫ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর অসিত বরন বিশ্বাস, মহানগর পূজা উদযাপন কমিটির যুগ্ম সাধারন সম্পাদক সাংবাদিক উত্তম সাহা, কোষাধ্যক্ষ কমলেশ সাহা, শ্রীশ্রী বলদেব জিউর আখড়া ও শিব মন্দিরের সাধারন সম্পাদক প্রদীপ সাহা, সাংগঠনিক সম্পাদক প্রবাস সাহা, সদর উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারন সম্পাদক রঞ্জিত মন্ডল, ফতুল্লা রিপোর্টাস ইউনিটির সভাপতি রঞ্জিত মোদক, বন্দর থানা পূজা উদযাপন কমিটির সাধারন সম্পাদক শ্যামল বিশ্বাস, সাংগঠনিক সম্পাদক রিপন দাস প্রমুখ।

বিকেল ৪ টার মধ্যেই নিতাইগঞ্জ শ্রীশ্রী বলদেব জিউর আখড়া প্রাঙ্গনে উক্ত মন্দিরের রথ, কাঁচারীগল্লি শ্রীশ্রী গোপাল জিউর আখড়া, দেওভোগ শ্রীশ্রী রাজা লক্ষ্মী নারায়ণ জিউর আখড়া, শ্রীশ্রী রামসীতা জিউর আখড়া, শ্রীশ্রী গৌর নিতাই জিউর আখড়া, শ্রীশ্রী রাধা গোবিন্দ জিউর মন্দির (ইসকনের) রথ নিয়ে আসা হয়। এরপর আলোচনা সভা শেষে এখান থেকে নগরীতে রথযাত্রা বের করা হয়।


মনবাসনা কামনার্থে শিশু থেকে বৃদ্ধ, নারী-পুরুষ ভক্তরা কলা চিনি, আম, কাঁঠাল, লটকন, আনারসসহ বিভিন্ন ফল দিয়ে শ্রীশ্রী জগন্নাথ দেবের কাছে ভোগ দিয়ে থাকেন।

নিয়ম অনুযায়ী এদিন এক মন্দিরের রথ আরেক মন্দিরে নিয়ে রাখা হয়। এক সপ্তাহ পর উল্টো রথযাত্রার দিন ফের অন্য মন্দির থেকে ভক্তরা রথ টেনে নিজ নিজ মন্দিরে নিয়ে আসবেন।

সনাতন ধর্মাবলম্বীদের বিশ্বাস জগন্নাথ দেব হলেন জগতের নাথ বা অধীশ্বর। জগত হচ্ছে বিশ্ব আর নাথ হচ্ছেন ঈশ্বর। তাই জগন্নাথ হচ্ছে জগতের ঈশ্বর। তার অনুগ্রহ পেলে মানুষের মুক্তিলাভ হয়। জীবরূপে তাকে আর জন্ম নিতে হয় না। এ বিশ্বাস থেকেই রথের ওপর জগন্নাথ দেবের প্রতিমা রেখে রথযাত্রা করেন সনাতন ধর্মাবলম্বীরা।

এদিকে, জগন্নাথ দেবের রথযাত্রা উপলক্ষে যেকোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা রোধে নগরীর নিতাইগঞ্জ থেকে উকিল পাড়া মোড় পর্যন্ত প্রধান সড়কের দু’ধারে ফুটপাতসহ সড়ক এমনকি বহুতল অনেক ভবনের ছাদে পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হয়েছিল। এছাড়াও প্রত্যেকটি মন্দিরের রথযাত্রার সামনে এবং পিছনেও ছিল পুলিশের গাড়ী বহর।

যেই কারনে নিরাপত্তার চাঁদরে ঢাঁকা নগরীতে স্বাচ্ছন্দে শ্রীশ্রী জগন্নাথ দেবের রথযাত্রা উৎসব উদযাপন করতে পেরেছেন নারায়ণগঞ্জের হিন্দু সম্প্রদায়।

অপরদিকে, রথযাত্রা উপলক্ষে নিতাইগঞ্জ বলদেব জিউর আখড়া ও দেওভোগ আখড়া প্রাঙ্গনে ভাসমান মেলা বসে।
আগামী ৩ জুলাই উল্টো রথযাত্রার মধ্য দিয়ে শেষ হবে শ্রীশ্রী জগন্নাথ দেবের রথযাত্রা উৎসব।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here