নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: ইহলোকের মায়া ত্যাগ করে না ফেরার দেশে চলে গেলেন ফতুল্লার শিল্প সাহিত্যের সহযোগী,মনন সাহিত্য সংগঠনের সম্পাদক কন্ঠ শিল্পী আঞ্জুমান আরা অনু। শনিবার রাতে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন(ইন্না নিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহীর রাজেউন)।

আঞ্জুমান আরা অনু । শিশু কাল থেকে সুরের জগতে ছিল তাঁর বিচরণ। পরবর্তীতে ফতুল্লার মনন সাহিত্য সংগঠনের সভাপতি, কবি ও সুরকার এসএ শামীমের সাথে বিয়ে হয়। গানের জগতের সাথে সাথে স্বামীর সাহিত্যকে চর্চাকেও নিজের মধ্যে ধারণ করেছিলেন অনু। যদিও সাহিত্য জগতে তাঁর বিচরণ তেমনটা ছিল না । তবুও নারায়ণগঞ্জ বিশেষ করে ফতুল্লার লেখকরা তাঁকে সাহিত্য সেবক হিসেবেই জানতেন। মননের প্রতিটি অনুষ্ঠানে আগত লেখকদের আপ্যায়ণ তিনি নিজ হাতেই করতেন। তাই কবি-লেখকদের মনে আঞ্জুমান আরা অনু জায়গা করে নিয়েছিলেন অনেক আগেই। অনু বাংলাদেশ বেতার ও টেলিভিশনের একজন কন্ঠ শিল্পী ছিলেন। জীবদ্দশায় তিনি দুটি এ্যালবাম করেছিলেন।

ঠান্ডাজনিত রোগে ভুগছিলেন অনু। ৩০ জানুয়ারী থেকে তিনি ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। শনিবার ভোর রাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। রোববার সকাল ১১টার দিকে ফতুল্লা কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে তাঁর নামাজের জানাযা শেষে দাফন করা হয়। মৃত্যুকালে তিনি দুই ছেলে, এক মেয়ে,দুই নাতি ও স্বামী এস এ শামীমসহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here