নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: নগরবাসীকে উন্নয়ণের স্বার্থে নিয়মিত কর পরিশোধের আহবান জানিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ডা: সেলিনা হায়াত আইভী।
রবিবার (২৩ জুলাই) সকাল ১১ টায় নগর ভবনে প্রাণবন্ত পরিবেশে সুধী সমাজের উপস্থিতিতে এই বাজেট ঘোষণা পরবর্তী বক্তৃতায় তিনি এই আহবান জানান।

মেয়র আইভী বলেন, ‘নগরবাসীর মতামত নিয়েই আমি উন্নয়ণ কাজ করছি। কিন্তু সেই উন্নয়ণ কাজ করার ক্ষেত্রেও অনেক প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি হচ্ছে। জিমখানায় দৃষ্টিনন্দন লেক নির্মান করার সময় বস্তিবাসীর বাঁধার মুখে পড়তে হয়েছে। পরবর্তীতে বস্তিবাসীকে পুনর্বাসনের আশ^াস দিয়ে এখন এইটর কাজ চলমান রয়েছে।’

লন্ডনের টেমস্ নদীর উদাহরন টেনে আইভী বলেন, ‘সদর-বন্দরবাসীর দীর্ঘদিনের কাঙ্খিত শীতলক্ষ্যাা সেতু এখন নির্মান হচ্ছে। কিন্তু নগরবাসীর চলাচলের স্বার্থে সিটি টু সিটি শহরের ৫নং সেন্ট্রাল ফেরী ঘাট দিয়ে একটি ব্রীজ করার প্রকল্প হাতে নিয়ে ছিলাম। যেই ব্রীজ দিয়ে যানবাহনও চলাচল করতো। কিন্তু জানি না কোন অজানা কারনে এটি নির্মানে বাঁধার সৃষ্টি হয়েছে। কারো এখানে ইগো কাজ করছে।’

‘কিন্তু লন্ডনের টেমস্ নদীতে যদি ৩০/৪০টি ব্রীজ থাকতে পারে তাহলে শীতলক্ষ্যা নদীতে ৫/৬টি ব্রীজ নির্মান হলে সমস্যা কোথায়? আর এই ব্রীজ কার উদ্যোগে হলো, কে করলো সেটা বড় কথা নয়, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আমলে হলে সেটাই হবে বড় ব্যাপার।’

তিনি আরো বলেন, ‘নগরীতে ময়লা ডাম্পিংয়ের কোন স্থান নেই। পঞ্চবটীতে ময়লা ফেলার কারনে তখন বিসিকের গার্মেন্ট ব্যবসায়ীরা দূর্গন্ধের কারনে আমাকে অন্যত্র ময়লা ফেলার অনুরোধ করেন। শুধু ব্যবসায়ীরাই নয়, এখানে উপস্থিত তৎকালীন বিকেএমইএ সভাপতি সেলিম ওসমান এমপি মহোদয়ও আমাকে অনুরোধ করেছিলেন। পরবর্তীতে সেখানে ময়লা ফেলা বন্ধ করে বিনোদনের জন্য পার্ক নির্মান করে দিয়েছি।’

তিনি বলেন, ‘নগরীর ময়লা ডাম্পিংয়ের জন্য জায়গা অধিগ্রহণের চেষ্টা চলছে। আপাদত ১৬ ওয়ার্ডে ময়লা ডাম্পিং করা হচ্ছে। আগামীতে আধুনিক পদ্ধতিতে ময়লা ডাম্পিং করা হবে।’

পরিশেষে আইভী বলেন, ‘স্বাস্থ্য, শিক্ষা, খেলাধূলা, বিনোদনসহ যোগাযোগ খাতে অনেক উন্নয়ণ করেছি। নারায়ণগঞ্জ শহরের তুলনায় সিদ্ধিরগঞ্জ আর বন্দরের সাবেক কদম রসুল পৌরসভাধীন এলাকায় যে উন্নয়ণ করা হয়েছে তা বিগত ৫০ বছরেও কেউ করেনি। তবে এই উন্নয়ণ ভবিষ্যতেও অব্যাহত থাকবে। কিন্তু এজন্য নগরবাসীকে নিয়মিত কর পরিশোধ করতে হবে। কারন করের ৮০ ভাগ টাকা আদায় করা না হলে উন্নয়ণ সম্ভব হয় না।’

এসময় মঞ্চে উপবিষ্ট ছিলেন, নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের সাংসদ সেলিম ওসমান, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ জেলা কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ আলী, নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এএফএম এহতেশামুল হক।

অন্যান্যের মধ্যে আরো উপস্থিত ছিলেন, ‘বিকেএমইএ সহ-সভাপতি (অর্থ) জি এম ফারুক, নারায়ণগঞ্জ নাগরিক কমিটির সভাপতি এড. এবি সিদ্দিক, জেলা যুবলীগ সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল কাদির, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ আহবায়ক নিজাম উদ্দিন, খেলাঘর কেন্দ্রীয় সাধারন সম্পাদক জহিরুল ইসলাম, শহর যুবলীগ সাধারন সম্পাদক আলী আহাম্মদ রেজা উজ্জল, কল্যাণী সেবা সংস্থার চেয়ারম্যান ডা: জব্বার চিশত্সীহ সকল কাউন্সিলরবৃন্দ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here