নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের জাতীয় কমিটির সদস্য ও নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির বিদায়ী সভাপতি এড. আনিসুর রহমান দিপু এবং মহানগর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক এড. খোকন সাহাই আওয়ামীলীগ পন্থী আইনজীবীদের অভিভাবক বলে মন্তব্য করেছেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাংসদ আলহাজ¦ এ কে এম শামীম ওসমান।
রবিবার (২৮ জানুয়ারী) দুপুরে নারায়ণগঞ্জ আদালত পাড়ায় সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের মনোনীত প্যানেলের প্রার্থীদের পক্ষে ভোট প্রার্থনায় এসে এই মন্তব্য করেন তিনি।

এসময় বন্ধু দিপু ও খোকন সাহাকে সাথে নিয়ে কফি পান কালে শামীম ওসমান তাদের পায়ে ধরে সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের সভাপতি প্রার্থী এড. হাসান ফেরদৌস জুয়েল ও সাধারন সম্পাদক প্রার্থী এড. মোহসীন মিয়াকে দোয়া চাওয়ার নির্দেশ দিয়ে বলেন, ‘আমার ভুল হয়ে গেছে। এখানে আমার আগেই আসা উচিত ছিল। জুয়েল-মোহসীন যেহেতু আওয়ামীলীগের প্রার্থী, তাই তাদের প্যানেল বিজয়ী করার দায়িত্ব এখন দিপু ও খোকনের।’

এরপর জুয়েল ও মোহসীন দিপু এবং খোকন সাহার পায়ে ধরে দোয়া কামনা করেন। তখন দিপু ও খোকন সাহা তাদের মাথায় হাত বুলিয়ে দোয়া করার পাশাপাশি তাদের বিজয় নিশ্চিতে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, নারায়ণগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ¦ লিয়াকত হোসেন খোকা, সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য এড. হোসনে আরা বাবলী, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এড. আবু হাসনাত মোঃ শহীদ বাদল, সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহ্বায়ক এড. আব্দুর রশিদ ভূঁইয়া, যুগ্ম সদস্য সচিব পিপি ওয়াাজেদ আলী খোকন প্রমুখ।

উল্লেখ্য, আগামী ৩০ জানুয়ারী অনুষ্ঠিতব্য নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে আওয়ামীলীগ সমর্থিত সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের প্যানেল গঠনে নানা নাটকীয়তা ঘটে। এড. আনিসুর রহমান দিপু ও এড. খোকন সাহার মতামতকে উপেক্ষা করে পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী শামীম ওসমানের সমর্থিত এড. হাসান ফেরদৌস জুয়েল ও এড. মোহসীন মিয়ার নেতৃত্বে প্যানেল গঠন করায় কিছুটা মনক্ষুন্ন হন দিপু ও খোকন সাহা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here