নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি, বন্দর প্রতিনিধি: বন্দর থানা পুলিশ জুয়ার আসরে অভিযান চালিয়ে ২ বান্ডিল তাস ও জুয়া খেলার নগদ দেড় লাখ টাকা ও ১টি পুরাতন লুঙ্গী উদ্ধারসহ ১০ জুয়ারীকে গ্রেপ্তার করেছে।

গত বুধবার রাতে বন্দর থানার দক্ষিন লক্ষনখোলা খলিল শাহ মাজার সংলগ্ন শাহজালাল মিয়ার ঘর থেকে জুয়া খেলা অবস্থায় এদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়। তবে পুলিশ জুয়ার র্বোড থেকে উদ্ধারকৃৃত দেড় লাখ টাকার কথা গোপন রেখে ২ বান্ডিল তাস ও নগদ ২৪’শ ১০ টাকা উদ্ধার দেখিয়ে বাকি টাকা তারা নিজেরা গায়েব করে ধৃত জুয়ারীদের বিরুদ্ধে জুয়া আইনে মামলা রুজু করেছে।

ধৃতরা হলো, বন্দর থানার চৌরাপাড়া এলাকার মাকেল উদ্দিন মিয়ার ছেলে আনিছুর রহমান (৩৩) একই এলাকার তৈয়ব আলী মিয়ার ছেলে সুজন (২২) আলম মিয়ার ছেলে শুভ (১৭) দক্ষিন লক্ষনখোলা এলাকার হাবিব মিয়ার ছেলে সুজন (২২) একই এলাকার ফিরোজ মুন্সি ছেলে আজাদুর রহমান (৩৫) নাছির উদ্দিন মিয়ার ছেলে শওকত (২৮) নুরু মিয়ার ছেলে রানা (২৫) রফিক মিয়ার ছেলে নাজমুল (১৯) ও আলাউদ্দিন মিয়ার ছেলে রনি (২৮)। নাম প্রকাশ না করার র্শতে ধৃত জুয়ারীদের আত্মীয় সূত্রে জানা গেছে, স্থানীয় এলাকাবাসীর এক সংবাদের ভিত্তিতে বন্দর থানার এএসআই ইলিয়াছ হোসেনসহ তার সঙ্গীয় র্ফোস বুধবার রাতে বন্দর থানার দক্ষিন লক্ষনখোলা খলিল শাহ মাজার সংলগ্ন শাহজালাল মিয়ার ঘরে এক জুয়ার আসরে অভিযান চালায়। অভিযানের সময় পুলিশ উক্ত জুয়ার র্বোড থেকে জুয়া খেলার নগদ দেড় লাখ টাকা, ২ বান্ডিল তাশ ও ১টি পুরাতন লুঙ্গী উদ্ধার করে। এলাকাবাসী জানিয়েছে, পুলিশের চোখ ফাঁকি দিয়ে লক্ষনখোলা এলাকার শাহজালাল মিয়া তার নিজ ঘরে জুয়ার আসর জমিয়ে তোলে। এখানে অনেক ব্যবসায়ীরা এসে জুয়া খেলতে আসে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here