নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপি’র সিনিয়র সহ সভাপতি এড. সাখাওয়াত হোসেন খান বলেছেন, বর্তমান সরকার ভারতের পুতুল সরকার। এই পুতুল সরকার নিরপেক্ষ নির্বাচনকে ভয় পায়। তাই তারা নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে গড়িমসি করছে। কিন্তু রাজপথে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলে এ সরকারকে নিরপেক্ষ সহায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে বাধ্য করবো। এই অগণতান্ত্রিক সরকার নির্বাচন নিয়ে যতই টালবাহানা করুক না কেন, ভারত আর আপনাদেরকে ক্ষমতায় রাখতে পারবে না।

নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপি নেতা জাকির খানের উদ্যোগে এবং গোগনগর ইউনিয়ন বিএনপি’র আয়োজনে সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধাণ অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রবিবার (২০ আগষ্ট) বিকেলে গোগনগর ইউনিয়নের চর সৈয়দপুরে এই উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এড. সাখাওয়াত হোসেন খান আরো বলেন, বর্তমান সরকার নারায়ণগঞ্জকে সন্ত্রাসের জনপদে পরিনত করেছে। এই নারায়ণগঞ্জে ত্বকীর মতো শিশুকে হত্যা করা হয় অথচ বিচার করা হয় না। ত্বকীর মতো অসংখ্য মায়ের বুক খালি করা হয়েছে। বিচারের বানী এখানে নিরবে কাঁদে। এই স্বৈরাচারী সরকারের অধীনে থাকা নারায়ণগঞ্জের প্রশাসনও বিএনপির সাথে অগণতান্ত্রীক আচরন শুরু করেছে। আগামী ২৩ আগষ্ট যুবদলের সমাবেশ করার জন্য প্রশাসনের কাছে অনুমতি চাওয়া হয়েছিলো, যে সমাবেশে সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি, সম্পাদকসহ কেন্দ্রীয় বিএনপি’র অনেক নেতা উপস্থিত থাকার কথা ছিলো। কিন্তু দু:খজনক হলেও সত্য যে, নারায়ণগঞ্জের প্রশাসন সে সমাবেশের অনুমতি দেয়নি। সরকারী দলের র‌্যালীর জন্য সমস্ত রাস্তা ঘাট বন্ধ করে দেয়া হয়, অথচ বিএনপি সভা করার অনুমতি পায় না।

তিনি আরো বলেন, বিএনপি’র চেয়ারপার্সণ দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া ঈদের পর দেশে এসে নির্বাচনকালীণ যে সহায়ক সরকারের রূপরেখা দিবেন, ২০ দলীয় জোটের সমস্ত নেতাকর্মীরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে আন্দোলন সংগ্রামের মাধ্যমে বর্তমান সরকারকে তা মানতে বাধ্য করা হবে। নারায়ণগঞ্জের রাজপথে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলে এ সরকারকে হঠিয়ে একটি অবাধ, সুষ্ঠ ও গ্রহনযোগ্য নির্বাচনের মাধ্যমে জাতীয়তাবাদী শক্তির সরকারকে ক্ষমতায় আসীণ করবো। এই আন্দোলন সংগ্রামে যে সকল বিএনপি নেতাকর্মীরা মামলার শিকার হবেন, তাদের বিনামূল্যে আইনী সহায়তা দেয়া হবে। এই সরকার নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপি নেতা জাকির খানকে ভয় পায়। তাই তার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে তাকে দেশ ছাড়তে বাধ্য করেছে। আইনী প্রক্রিয়ার মাধ্যমে জাকির খানের সকল মিথ্যা মামলার অবসান ঘটিয়ে তাকে আবারো নারায়ণগঞ্জের মাটিতে ফিরিয়ে আনা হবে।
নারায়ণগঞ্জ থানা যুবদল নেতা আহাম্মদ আলীর সভাপতিত্বে এবং মহানগর মৎসজীবী দলের সাধারণ সম্পাদক পারভেজ মল্লিকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ণ কার্যক্রমের উদ্বোধণী অনুষ্ঠানে প্রধাণ বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মৎসজীবী দলের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক মিলন মেহেদী।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপি’র সহ সাংগঠনিক সম্পাদক রুহুল আমিন শিকদার, বন্দর পৌর বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক এড. মাজহারুল ইসলাম, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম আহবায়ক এড. এইচএম আনোয়ার প্রধাণ, জেলা মহৎজীবী দলের সভাপতি জাহাঙ্গির আলম রতন প্রমূখ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here