নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: পৌষের শেষে হাড় কাঁপানো শীতে ছিন্নমূল অসহায় মানুষের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসন কর্তৃক বরাদ্দকৃত কম্বল তারাবো পৌরসভায় নেওয়া হয়েছে ময়লার ট্রাকে। যা দেখে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন সাধারণ জনগন।
পৌরসভার ময়লা আনা নেওয়ার ট্রাকে করে শীতার্তদের কম্বল পরিবহনের মাধ্যমে অসহায় দুস্থ্য জনগনকে অবমাননা করা হয়েছে বলে মনে করেন তারা। এবং ভবিষ্যতে এ থেকে বিরত থাকার জন্য যথাযথ কর্তৃপক্ষের প্রতি আহবান জানিয়েছেন তারা।

সরেজমিনে রবিবার (১৪ জানুয়ারী) নারায়ণগঞ্জ আদালত পাড়ায় দেখা গেছে, নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসন থেকে তারাবো পৌরসভাধীন অসহায় শীতার্তদের জন্য বরাদ্দকৃত ৩২৫ পিস কম্বল নেওয়ার জন্য দাঁড়িয়ে ছিল তারাবো পৌরসভার ময়লার একটি ট্রাক। ট্রাকের ভিতরে সে সময়ে ময়লার অংশ বিশেষ ছড়ানো ছিটানো ছিলো। এরপর সেই অবস্থাতেই কম্বলগুলো ট্রাকে তোলা হয় এবং তারাবোর উদ্দেশ্যে নিয়ে যায় চালক।

ময়লার ট্রাকে কম্বল পরিবহন করার বিষয়ে জানতে চাইলে গাড়িতে অবস্থানরত তারাবো পৌরসভার প্যাণেল মেয়র-১ আমীর হোসেন ভূইয়া নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডিকে বলেন, নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসন থেকে তারাবো পৌরসভার জন্য ৩২৫ পিস কম্বল বরাদ্দ করা হয়েছে শীতার্ত মানুষের মাঝে বিতরণের জন্য। পরিবহন ভাড়া বাঁচানোর জন্য ময়লার ট্রাকে নেয়া হচ্ছে। বাইরে থেকে ট্রাক ভাড়া করলে খরচ লাগবে, সে খরচ মেটাবে কে? তাই এই ট্রাকেই নেয়া হচ্ছে।

এদিকে ময়লার ট্রাকে করে কম্বল পরিবহন করতে দেখে ক্ষোভ জানিয়েছেন আদালতপাড়ায় অবস্থানরত বিচার প্রার্থী সাধারণ মানুষ।

তারা ক্ষোভের সঙ্গে বলেন, ময়লার ট্রাকে এখনও ময়লা পরে আছে। এটাকে পরিস্কার না করেই তাতে কম্বল নেয়া হলো। এতে করে ময়লার মধ্যে থাকা রোগ জিবাণু কম্বলের সাথে লেগে গেলো। এগুলোই আবার অসহায় মানুষের মাঝে বিতরণ করে তারা বাহাবা নিবে। অথচ তারা নিজেদের ব্যবহারের জন্য হলে তা কখনো কি ময়লার ট্রাকে করে নিয়ে যেতো! এসব বিষয়ে কতৃপক্ষকে আরো যতœবান হতে হবে। অসহায় দরিদ্র মানুষের অসহায়ত্বের সাথে এসব প্রহসন বন্ধ করা দরকার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here