নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি, সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি: দেশের প্রতিটি পাড়ামহল্লা থেকে সচিবালয় পর্যন্ত ভুয়া মুক্তিযোদ্ধাদের ভীড়ে প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধারা স্থান পাচ্ছেনা উল্লেখ করে জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের মহাপরিচালক ও অতিরিক্ত সচিব মোঃ মিজানুর রহমান বলেছেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষনই মুক্তিযোদ্ধের চেতনা। কেহ যদি বলে সূর্যের রঙ কালো, তা যেমন সকলের কাছে মিথ্যা বলে বিবেচিত হবে, ঠিক তেমনি বঙ্গবন্ধুর ভাষন যদি কেহ অশ্বিকার করে তাহলে তা সূর্যকে কালো বলার মতই মিথ্যা বলে বিবেচিত হবে।

শনিবার (৩ মার্চ) সকাল ১১ টায় ১ নং ওয়ার্ড সিদ্ধিরগঞ্জের মিজমিজি টিসি রোড এলাকায় বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা পূনর্বাসন বহুমূখী সমবায় সমিতির উদ্যোগে আয়োজিত মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়ন সেমিনার-২০১৮ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

নারায়ণগঞ্জ জেলার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মোঃ রেজাউল বারীর সভাপতিত্বে এ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলরের পরিচালক (যুগ্ন সচিব) মোঃ আহসান হাবিব, জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলরের উপ-পরিচালক আতাউর রহমান, নাসিক ১,২ ও ৩ নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর মাকসুদা মুজাফ্ফর, নাসিক ১নং ওয়ার্ডের সাবেক কাউন্সিল আব্দুর রহিম, রেকমত আলী উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ আলী।

প্রধান অতিথি আরো বলেন, মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস ও তালিকা দরকার। কারণ,অর্থের বিনিময়ে মুক্তিযোদ্ধারাই ভুয়া মুক্তিযোদ্ধার সনদ দিয়েছে। যে কারণে প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধার চেয়ে ভুুয়া মুক্তিযোদ্ধার সংখ্য বেশী। যা জাতির জন্য অত্যান্ত লজ্জাজনক। পশ্চিম পাকিস্তানিরা পূর্ব পাকিস্তানকে শোষন করতো বিধায় স্বাধীনতার অন্দোলন গড়ে উঠেছিল। মানুষ সুখে থাকবে,শান্তিতে থাকবে, পরাধিনতার শৃকল থেকে মুক্তি পাওয়ার নামইত স্বাধীনতা। তিনি বলেন, শুধু মুখে স্বাধীনতার চেতনা বললে হবে না। স্বাধীনতার চেতনা অন্তরে ধারন করতে হবে। দেশ যদি বিশ্বের উন্নত রাষ্ট্র যেমন,আমেরিকা,জাপান, জার্মানের মত উন্নত হয়ে উঠে তবেই হবে স্বাধীনতার চেতনা। বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা স্বাধীনতার চেতনা বাস্তবায়ন করার জনই দেশকে বিশ্বের উন্নত দেশের মত করে গড়ে তুলতে কাজ করছেন।

অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ সফিউদ্দিন, মোঃ সিরাজুল হক, হযরত আলী, আব্দুল মজিদ, আব্দুল খালেক বেপারী, গোলাম মোস্তাফা, নুরে আলম কাশেম, ওসমান গনী, আহসানউল্লা, দুলাল মিয়া, নুরুল ইসলাম, মাহাবুব চৌধরী, যুদ্ধাহত ইউনুস মাষ্টার, শাহালম, আব্দুল মান্নান, আব্দুল হাই, রফিকুল ইসলাম, আবুবক্কর সিদ্দিক ও আব্দুর রশিদ।সার্বিক পরিচালনায় ছিলেন, বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা পূনর্বাসন বহুমুখী সমবায় সমিতির সভাপতি মোঃ বীর মুক্তিযোদ্ধা জসিম উদ্দিন। উপস্থাপনা করেছেন, সাংবাদিক আমির হোসেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here