মাদক সমাজ ধ্বংসের অন্যতম উপাদান। এই মাদকের দ্বারা বর্তমানের যুবসমাজ মারাত্মকভাবে ধ্বংসের দিকে ধাবিত হচ্ছে। প্রতিনিয়ত দেশের বিভিন্ন জায়গায় মাদক, সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে প্রশাসনসহ বিভিন্ন সংগঠনের ব্যানারে মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হচ্ছে। এবার সেই মাদকের বিরুদ্ধে মানববন্ধন করে নির্মমভাবে হামলার শিকার হয়েছেন এক ব্যবসায়ী।

এতক্ষণ বলছিলাম নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলার মাহমুদপুর ইউনিয়নের কথা। ইউনিয়নের গহরদী গ্রামের হাবিবুল্লার ছেলে জয়নাল দেওয়ান (৩৫) একজন কাপড় ব্যবসায়ী। মাদকের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করায় জয়নাল দেওয়ান’র উপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। এসময় হামলাকারীরা জয়নাল দেওয়ানের ডান পাশের চোখে ও কপালে আঘাত করে, এতে জয়নালের ডান পাশের চোখ নষ্ট হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ঘটনায় থানায় অভিযোগের প্রক্ষিতে ৩২৬ দ্বারার মামলাটি তদন্তাধীন রয়েছে।

ভুক্তভোগীর ভাই মো জালাল থানায় দায়েরকৃত অভিযোগে বলেন, তার ভাই জয়নাল দেওয়ান কালিবাড়ী এলাকার কাপড় ব্যবসায়ী। ২১ ফেব্রুয়ারিতে তার ভাই মাদক বিরোধী র‍্যালি ও পথসভা করে। পরদিন সন্ধ্যা কালিবাড়ী দোকান থেকে বাড়িতে যাওয়ার সময় পথিমধ্যে মনির শিকারী, জুয়েল শিকারী, ফারুক শিকারী, গোলাপ কাজীসহ ২০ জন জয়নাল দেওয়ানকে অটো রিক্সা থেকে নামায়। এসময় জুয়েল শিকারী আমার ভাইকে রড দিয়ে মাথায় আঘাত করলে ডান পাশের চোখে মারাত্মক জখম হয়, যা চিরতরে নষ্ট হয়ে যায়, এসময় অন্যান্য আসামীরা হকিস্টিক দিয়ে এলোপাতাড়ি মারে এবং সাথে থাকা নগদ দেড় লাখ টাকা ও মোবাইল নিয়ে যায়। বর্তমানে জাতীয় চক্ষু বিজ্ঞান ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন আছেন জয়নাল দেওয়ান। সেখানকার ডাক্তার জানিয়েছেন তার চক্ষু চিরতরে নষ্ট হয়ে গেছে।

এ বিষয়ে আড়াইহাজার থানার ওসি আনিসুর রহমান মোল্লা বলেন, ‘অভিযোগের প্রেক্ষিতে ৩২৬ দ্বারায় মামলা করা হয়েছে, মামলাটি তদন্তাধীন রয়েছে’।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here