নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি, বন্দর প্রতিনিধি: বন্দরে ১ লাখ টাকা যৌতুকের দাবিতে ১ সন্তানের জননী জিয়াসমিন আক্তার (২৫)কে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে আহত করা ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।
এ ব্যাপারে নির্যাতিতা গৃহবধূর পিতা গোলজার হোসেন বাদী হয়ে যৌতুক লোভী স্বামীকে আসামী করে বন্দর থানায় এ মামলা দায়ের করেন। যার মামলা নং- ৬(৪)১৮ ধারা- নারী ও শিশু নির্যাতন আইন ২০০০(সং/০৩) এর ১১ (খ)।

এ ঘটনায় পুলিশ বন্দর লেজারার্স এলাকায় অভিযান চালিয়ে একই এলাকার খোরশেদ আলম মিয়ার যৌতুক লোভী পাষান্ড ছেলে আমিন হোসেন (২৮)কে গ্রেপ্তার করে। জানা গেছে, ২ বছর পূর্বে বন্দর উপজেলার ধামগড় ইউনিয়নস্থ সেনের বাড়ী এলাকার গোলজার হোসেন মিয়ার মেয়ে জিয়াসমিন আক্তারের সাথে বন্দর লেজারার্স এলাকার খোরশেদ আলমের ছেলে আমিন হোসেনের সাথে নগদ দেড় লাখ টাকা যৌতুক দিয়ে সামাজিক রিতি নিতে মেনে বিয়ে হয়। বিয়ের পর তাদের সংসারে ১টি কন্যা সন্তানের জন্ম হয়। সন্তান জন্ম গ্রহনের পর থেকে যৌতুক লোভী স্বামী আমিন হোসেন তার স্ত্রীকে আরো ১ লাখ টাকা তার পিত্রালয় থেকে এনে দেওয়ার কথা বলে। এতে সে রাজি না হলে এর জের ধরে গত ২ এপ্রিল সোমবার দুপুর দেড় টায় ক্ষিপ্ত হয়ে হত্যার জন্য গৃহবধূ জিয়াসমিনকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে মাথায় আঘাত করে রক্তাক্ত জখম করে।

এ ব্যাপারে থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ যৌতুক লাভী স্বামীকে গ্রেপ্তার করে ওই মামলায় মঙ্গলবার দুপুরে তাকে আদালতে প্রেরণ করেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here