নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: ব্যক্তিগত দ্বন্দ থেকে সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় ক্ষমতাসীন দলের নারায়ণগঞ্জের দুই জনপ্রতিনিধিকে কঠোর উপদেশ দিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।
বুধবার (১৭ জানুয়ারী) বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের নির্দেশে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন মেয়র সেলিনা হায়াত আইভী ও নারায়ণগঞ্জ-৪ (ফতুল্লা-সিদ্ধিরগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমানকে শান্তু থাকতে ফোন দিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

গত ১৬ জানুয়ারী নারায়ণগঞ্জ শহরে হকারদের ঠেকাতে রাস্তায় নামার পর মেয়র আইভী ও শামীম ওসমানের সমর্থক হকারদের মধ্যে সংঘর্ষ ও গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এতে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আইভীসহ অর্ধশতাধিক ব্যক্তি আহত হন।

বুধবার সচিবালয়ে নিজ দফতরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমাকে পার্টির সেক্রেটারী ওবায়দুল কাদের সাহেব বলেছেন ম্যাসেজটা তাদের কাছে পৌঁছে দেন- তারা (আইভী-শামীম) যাতে শান্ত থাকে। পরস্পরবিরোধী অ্যাকটিভিটিসে যাতে না যায়। এ ম্যাসেজটাই আমি পৌঁছে দিয়েছি। বলেছি যে তারা যাতে শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখেন এবং শান্তি রক্ষার জন্য যাতে প্রশাসনকে সহযোগিতা করেন।

হকার উচ্ছেদের বিষয়ে কোনো নির্দেশনা দিয়েছেন কিনা- জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, হকার উচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নারায়ণগঞ্জের মেয়রের, আমরা এ বিষয়ে কিছু জানি না। শামীম ওসমান সাহেব জনপ্রতিনিধি। আমরা যতটুকু শুনেছি, এ কারণেই একটা বিরোধ আছে। তারা বসে সিদ্ধান্ত নেবেন এটা কীভাবে সেটেলড করবেন। এটাই আমি উপদেশ দিয়েছি।

অন্যদিকে বুধবার ধানমন্ডিতে সংবাদ সম্মেলনে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, নারায়ণগঞ্জে যদি অস্ত্রের ব্যবহার এবং গোলাগুলি হয়ে থাকে এ বিষয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য বলেছি। তিনি খোঁজ-খবর নিচ্ছেন, তদন্ত করে ব্যবস্থা নেবেন। তাদের দু’জনকেই (সেলিনা হায়াত আইভী ও শামীম ওসমান) স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী তলব করেছেন। দল থেকে তাদের ঢাকায় তলব করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here