নিউজ প্রাচ্যের ডান্ডি: সারাদেশে আলোচিত নারায়ণগঞ্জের সাত হত্যা মামলার বাদী পক্ষের আইনজীবী এড. সাখাওয়াত হোসেন খান বলেছেন, আজ থেকে তিন বছর আগে আজকের দিনে নৃশংসভাবে খুন হওয়া আইনজীবী চন্দন সরকারসহ সাতজনের পরিবার খুবই মানবেতর অবস্থায় জীবন যাপণ করছে। কেউ তাদের খোঁজ খবর নেয় না। তাই আমি সরকারের কাছে আবেদন করবো, সাত হত্যা মামলায় সাজাপ্রাপ্ত দুস্কৃতিকারীদের সম্পদ বাজেয়াপ্ত করে সেই অসহায় পরিবারগুলোর মাঝে বন্টন করে দেয়া হোক।
সেভেন মার্ডারের তিন বছর পূর্তি উপলক্ষে খুনিদের সাজার রায় দ্রুত কার্যকর করার দাবীতে নারায়ণগঞ্জ আদালতের সাধারণ আইনজীবীদের ব্যানারে আয়োজিত মানববন্ধনে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।


বৃহস্পতিবার (২৭ এপ্রিল) দুপুরে নারায়ণগঞ্জের আদালত প্রাঙ্গণে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
এড. সাখাওয়াত হোসেন খান আরো বলেন, পুলিশ কিংবা সরকারী কোন কর্মকর্তা মারা গেলে রাষ্ট্র থেকে সেই নিহতের পরিবারকে সাহায্য সহযোগিতা করা হয়। তেমনিভাবে সেভেন মার্ডারে নিহতদের পরিবারের কর্মক্ষম ব্যাক্তিদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য সরকারের কাছে জোর দাবী জানাচ্ছি। সেই সাথে নি¤œ আদালতের রায় উচ্চ আদালতে বহাল রেখে রায় দ্রুত কার্যকরের দাবী জানাচ্ছি। আসামীদের অনেকে দেশের প্রভাবশালী লোকের আত্মীয় হওয়ায় মামলায় যাতে এর কোন প্রভাব না পরে সে বিষয়ে লক্ষ্য রাখতে সকলের প্রতি অনুরোধ করছি।
মানববন্ধনে উপস্থিত নিহত কাউন্সিলর নজরুল ইসলামের সহধর্মিনী সালমা ইসলাম বিউটি বলেন, যারা এই নৃশংস হত্যাকান্ডের প্রতিবাদ জানিয়েছে, তাদের সবার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। কারন সকলের সম্মিলিত প্রতিবাদের কারনেই খুনিদের সর্বোচ্চ সাজার রায় হয়েছে। এখন আমাদের চাওয়া, এই রায় দ্রুত বাস্তবায়ন করা হোক। সেই সাথে নিহতদের পরিবারকে পূণর্বাসন করা হোক।
মানববন্ধনে আরো উপস্থিত ছিলেন নিহত আইনজীবী এড. চন্দন সরকারের ভাগিনা এড. প্রিয়তম, সিনিয়র আইনজীবী এড. জাকির হোসেন, এড. সরকার হুমায়ুন কবীর, এড. আজিজুল হক, এড. মশিউর রহমান শাহীন, এড. এইচএম আনোয়ার প্রধাণসহ নারায়ণগঞ্জ আদালতের সাধারণ আইনজীবীবৃন্দ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here